বাংলাদেশ, বুধবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২০ ৮ই আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

চসিক নির্বাচনে ১৮নং ওয়ার্ডে কাউন্সিলর পদপ্রার্থী মোঃ মহিউদ্দীন এলাকায় সর্বজন স্বীকৃত যোগ্য ব্যক্তিত্ব


প্রকাশের সময় :24 February, 2020 5:35 : PM

স্টাফ রিপোর্টার:

চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের (চসিক) ১৮ নম্বর ওয়ার্ড এর লোকসংখ্যা প্রায় ৫৬ হাজার। ভোটার ৩৪ হাজার এর মতো। চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের পূর্বাংশে ১৮নং বাকলিয়া ওয়ার্ডের অবস্থান। আসন্ন সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনকে সামনে রেখে কাউন্সিলর প্রার্থীরা ইতিমধ্যেই দৌড়ঝাপ শুরু করেছে। এবারের চসিক নির্বাচনে ১৮নং পূর্ব বাকলিয়া ওর্য়াডে বিএনপির একক প্রার্থী হিসাবে মোঃ মহিউদ্দীনকে মনোনয়ন দেওয়া হয়েছে।

আসন্ন চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে ১৮নং ওর্য়াডে কাউন্সিলর পদপ্রার্থী মোঃ মহিউদ্দীন এলাকায় সর্বজন স্বীকৃত যোগ্য ব্যক্তিত্ব। তার রাজনৈতিক জীবনের বর্নাঢ্য ইতিহাস তার প্রয়াত শ্রব্দেয় পিতার আদর্শে সাজানো এবং অত্র এলাকার উন্নয়নের অগ্রযাত্রায় নিবেদিত। মোঃ মহিউদ্দীন চট্টগ্রামের বাকলিয়ায় এক মুসলিম সম্ভ্রান্ত পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। তার পিতা দীর্ঘ ২২ বছর অত্র এলাকার চেয়ারম্যান ছিলেন।

বর্তমানে তিনি নগরীর ১৮নং পূর্ব বাকলিয়া ওর্য়াড বিএনপির সাধারণ সম্পাদক হিসেবে যোগ্যতার সাথে দায়িত্ব পালন করে আসছেন।

দলীয় মনোনয়ন পাওয়ার পর তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়া সম্পর্কে মোঃ মহিউদ্দীন একাত্তর বাংলা নিউজকে বলেন, আল্লাহর দরবারে হাজার শুকরিয়া । দলের নীতিনির্ধারকদের প্রতি আমি আন্তরিক কৃতজ্ঞতা জানাই। তারা আমাকে যোগ্য মনে করেছেন এ আমার পরম পাওয়া। নির্বাচিত হলে ইনশাআল্লাহ ১৮নং পূর্ব বাকলিয়া ওর্য়াডের মানুষের জন্য নিজের সর্বোচ্চটা দিয়েই কাজ করে যাবো। আশা করছি পূর্ব বাকলিয়া ওয়ার্ডের জনগণ আমার ওপর আস্থা ও বিশ্বাস রাখবেন।

একাত্তর বাংলা নিউজের সাথে একান্ত সাক্ষাতকারে এই ত্যাগী ও বলিষ্ঠ নেতা মোঃ মহিউদ্দীন জানায় জন্মের পর যখন থেকে বুজতে শিখেছি তখন থেকেই রাজনীতির সাথে আমরা পরিচিত। যেহেতু আমার পিতা দীর্ঘ দিন যাবত অত্র এলাকায় চেয়ারম্যান ছিলেন তাই তার কাছ থেকে মানুষকে কিভাবে সেবা করতে হয় সেটি খুব ভাল ভাবে শিখতে পেরেছি। তাই মানুষকে সেবা করার প্রয়াসেই রাজনীতিতে আসা। কাউন্সিলর না হয়েও আমি এলাকার বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কাজে নিজেকে সম্পৃক্ত রাখতে চেষ্টা করি। তারই ধারাবাহিকতায় অত্র এলাকায় বিভিন্ন স্কুল-কলেজ, মসজিদ-মাদ্রাসা থেকে শুরু করে বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কাজে যতটুকু পেরেছি আর্থিকভাবে এবং শারিরিকভাবে সহযোগীতার হাত বাড়িয়ে দিয়েছি। মহান সৃষ্টিকর্তা ইচ্ছা এবং অত্র এলাকার জনগণ আমাকে যদি কাউন্সিলর নির্বাচনের মাধ্যমে তাদের সেবা করার সুযোগ করে দেয় তাহলে ভবিষ্যৎতে আরও বেশী সেবা করার সুযোগ পাবো ইনশাআল্লাহ।

চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের ১৮নং ওয়ার্ডটি একটি ঘনবসতিপূর্ণ এলাকা। এখানে যুগ যুগ ধরে রাজনৈতিক দিক নির্দেশকরা তাদের হৃদয়ে দেশপ্রেম লালন করে আসছে। এখানে মাঠে ঘাটে সকলের সাথে সুসম্পর্ক স্থাপন করে আমি বড় হয়েছি। আমি জানি তাদের সুখ-দূঃখ পারিপার্শ্বিকতা। জনগণের ভালোবাসা ও আল্লাহর অশেষ রহমত থাকলে আমি ১৮ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর নির্বাচিত হলে এলাকাবাসি সহ অত্র এলাকার সাথে আরও বেশি সংযুক্ত হয়ে কাজ করতে পারব।

তিনি আরও বলেন, আমি যদি নির্বাচিত হই তাহলে আমার প্রথম কাজ হবে শ্রম এবং মেধার মাধ্যমে ১৮নং পূর্ব বাকলিয়াকে একটি মডেল ওয়ার্ডের আদলে করতে পারি এই প্রচেষ্টা থাকবে। এবং আমার এলাকা থেকে জলাবদ্ধতা নিরসন এবং মাদক নির্মূল করা এই দুইটা বিষয়ে কঠোর প্রদক্ষেপ নিবো ইনশাআল্লাহ্‌। এই ওয়ার্ডে একটা শিশু পার্ক স্হাপন, একটি মহিলা কলেজ, গরীব অসহায়, ভূমিহীনদের জন্য একটি কবরস্থান করার পরিকল্পনা আছে আমার। ইনশাআল্লাহ্‌ জয়যুক্ত হলে এইসব কাজগুলো অগ্রাধিকার ভিত্তিতে করার চেষ্টা করবো।

মোঃ মহিউদ্দীন রাজনীতির পাশাপাশি বিভিন্ন শিক্ষা,সাংস্কৃতিক ও সামাজিক সংগঠনের সাথে নিজেকে সম্পৃক্ত করে সেবা মূলক কাজ করে যাচ্ছেন। মোঃ মহিউদ্দীন ব্যক্তিগত জীবনে তিনি সদা হাস্য উজ্জল, বন্ধুবৎসল ব্যক্তি। সততা, ন্যায়,নিষ্ঠা এবং অসীম ধৈর্য্য তার পথচলার পাথেয়। তিনি দল মত ধর্ম বর্ণ নির্বিশেষে ছোট বড় সকলের নিকট দোয়াপ্রার্থী। বিশেষ করে তার নির্বাচনী এলাকা চসিকের ১৮নং পূর্ব বাকলিয়া ওয়ার্ডের সকল ভোটার ভাই-বোনদের কাছে তিনি বিনীত অনুরোধ রেখেছেন যাতে তাকে তাদের মূল্যবান ভোট প্রদানের মাধ্যমে কাউন্সিলর নির্বাচিত করে তাদের আরও কাছে গিয়ে সেবা করার সুযোগ করে দেয়।

ট্যাগ :