বাংলাদেশ, শুক্রবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২০ ৩রা আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

মাসুদ-প্রদীপ-লিয়াকত-কোবরাসহ ৮ জনের ব্যাংক লেনদেন অবরুদ্ধ


প্রকাশের সময় :18 August, 2020 4:05 : AM

কক্সবাজার প্রতিনিধিঃ

বাংলাদেশ ফাইন্যান্সিয়াল ইন্টেলিজেন্স ইউনিট (বিএফআইইউ) কক্সবাজারের পুলিশ সুপার (এসপি) এবিএম মাসুদ হোসেন, টেকনাফ থানার সাবেক ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) প্রদীপ কুমার, বাহারছড়া পুলিশ তদন্তকেন্দ্রের সাবেক ইনচার্জ এসআই লিয়াকত হোসেন, খলনায়ক ইলিয়াস কোবরার ব্যাংক হিসাব স্থগিত করেছে। তালিকায় আছে ওসি প্রদীপের ৪ স্বজন।

সোমবার (১৭ আগস্ট) বাংলাদেশ ফাইন্যান্সিয়াল ইন্টেলিজেন্স ইউনিট (বিএফআইইউ) থেকে চিঠি দিয়েছে  দেশে কার্যত সব ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানে। চিঠিতে এ বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

বিএফআইইউ ওই চিঠিতে আগামী  তিনদিনের মধ্যে স্থগিত করা হিসাবগুলোর নাম, নম্বর, স্থিতি, এ সংক্রান্ত তথ্যাদি (হিসাব খোলার ফরম, কেওয়াইসি প্রোফাইল ফরম, হালনাগাদ লেনদেনের বিবরণী) পাঠাতে বলা হয়েছে।

চিঠিতে যে আটজনের ব্যাংক হিসাব স্থগিত ও তথ্য চাওয়া হয়েছে, সেসব হিসাবগুলো হচ্ছে, এবিএম মাসুদ হোসেন, প্রদীপ কুমার দাশ,  মো. লিয়াকত আলী,ইলিয়াস কোবরা এবং প্রদীপ দাশের স্ত্রী চুমকী কারান, প্রতীম কুমার দাশ, প্রতুশ কুমার দাশ, দিলীপ । হিসাবগুলোকে লেনদেন মানিলন্ডারিং প্রতিরোধ আইনের ক্ষমতাবলে ৩০ দিনের জন্য স্থগিত রাখার নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

ট্যাগ :