মোস্টবেট বাংলাদেশের সেরা বুকমেকার। স্পোর্টস বেটিং, অনলাইন ক্যাসিনো সকলের জন্য সীমাবদ্ধতা ছাড়াই উপলব্ধ, এবং একটি ব্যাঙ্ক কার্ডে Mostbet withdrawal সম্ভব!
Türkiye'nin en iyi bahis şirketi Mostbet'tir: https://mostbet.info.tr/

বাংলাদেশ, রোববার, ১৪ জুলাই ২০২৪ ৩০শে আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

পটিয়ার নলান্দায় মাজারের মেলায় আসা ফার্নিচার ব্যবসায়ীকে পিটিয়ে হত্যা


প্রকাশের সময় :১৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ৯:০১ : পূর্বাহ্ণ

পটিয়া প্রতিনিধি:

চট্টগ্রামের পটিয়া উপজেলার কোলাগাঁও ইউনিয়নে জামাল (৫০) নামে এক ফার্নিচার ব্যবসায়ীকে পিটিয়ে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। আজ সোমবার (১৭ ফেব্রুয়ারি) ভোর ৫টার দিকে উপজেলার কোলাগাঁও ইউনিয়নের নলান্দা গরিব উল্লাহ শাহ্ মাজারের সামনে এ ঘটনা ঘটে।

পটিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) বোরহান উদ্দীন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। নিহত জামালের বাড়ি নরসিংদীর বেলাবোতে। স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, পটিয়া উপজেলার কোলাগাঁও ইউনিয়নে গরিব উল্লাহ শাহর মাজারের ওরশ উপলক্ষে মেলায় কাঠের তৈরি জিনিস বিক্রি করতে এসেছিল জামাল। আজ সোমবার ভোরে তার মৃতদেহ পরে থাকতে দেখে পুলিশে খবর দেয় স্থানীয়রা। ওসি বোরহান উদ্দীন একাত্তর বাংলা নিউজকে বলেন, “কোলাগাঁও ইউনিয়নে এক ফার্নিচার ব্যবসায়ীকে পিটিয়ে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ (চমেক) হাসপাতালে প্রেরণ করেছে। লাশের গায়ে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। ইতিমধ্যে নলান্দা গ্রামের প্রাত্তন চেয়ারম্যান মরহুম নুর আলী এর ছোট ভাই মাহবুব আলমকে ঘটনার সাথে জড়িত থাকার সন্দেহে গ্রেফতার করা হয়েছে। এই সময় নুর হোসেন নামে এক ব্যাক্তির ঘরের পাশে মেলার ফার্নিচার দোকান থেকে লুট হওয়া বিভিন্ন ফার্নিচার সামগ্রী উদ্ধার করা হয়। এবং তার তাৎক্ষণিক স্বীকারুক্তীতে জানা যায়, গ্রেফতারকৃত মাহবুব আলমের নির্দেশেই তারা এই ঘটনা সংঘটিত করেছে। উল্লেখ্য গ্রেফতারকৃত মাহবুব আলম গত ২০০৮ সালেও খোরশেদ আলম কুসুম নামের একই এলাকার এক যুবককে ছুরিকাঘাতে হত্যা করে বলে জানা গেছে। ফার্নিচার ব্যাবসায়ী হত্যাকান্ডের ঘটনায় জড়িত অন্যান্য আসামীদের ধরতে পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে বলে জানান তিনি। ’’

উল্লেখ্য গত ১০ই ফেব্রুয়ারি নলান্দা গরিব উল্লাহ শাহ এর বার্ষিক ওরশ শরীফ অনুষ্ঠিত হয়। ওরশ উপলক্ষে মেলায় আসা ফার্নিচার এর দোকান গুলো তাদের বেচাকেনা এখনও অব্যাহত রেখেছে বলে জানায় এলাকাবাসী। নাম না জানানোর শর্তে ওরশ পরিচালনাকারী কমিটির এক সদস্য জানান, এই দোকানগুলো থেকে ঐ এলাকার কিছু বিপদগামী তরুণ সন্ত্রাসী ও চাঁদাবাজ পরিচয়ে চাঁদা দাবী করে আসছিল, চাঁদা না দেওয়াতে এই হত্যাকান্ড হতে পারে বলে মনে করেন তিনি।

ট্যাগ :