বাংলাদেশ, শনিবার, ২৯ জানুয়ারী ২০২২ ১৫ই মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

শিরোনাম

চট্টগ্রামের বাঁশখালী পৌর নির্বাচনে লড়াই হবে দ্বিমুখী ও হাড্ডাহাড্ডি


প্রকাশের সময় :১৩ জানুয়ারি, ২০২২ ৩:০৫ : অপরাহ্ণ

বাঁশখালী প্রতিনিধিঃ

আসন্ন ১৬ জানুয়ারি চট্টগ্রামের বাঁশখালী পৌরসভা নির্বাচনকে সামনে রেখে বাঁশখালী পৌরসভায় জমে উঠেছে জমজমাট প্রচারণা। জোরেশোরে বইছে ভোটের হাওয়া। মেয়র প্রার্থীরা রাতদিন নির্বাচনের মাঠে। বসে নেই সাধারণ ওয়ার্ডর কাউন্সিলর ও সংরক্ষিত মহিলা আসনের প্রার্থীরাও। তারাও নির্বাচনের মাঠে।

জানা গেছে, দেশের অন্যান্য জেলার তুলনাই বাঁশখালী উপজেলার রাজনৈতিক চিত্র ভিন্ন। মূলত হাড্ডাহাড্ডি লড়াইটা হবে প্রধান দুই রাজনৈতিক দল আওয়ামী লীগের প্রার্থী অ্যাডভোকেট তোফাইল বিন হোছাইন ও বিএনপি সমর্থিত স্বতন্ত্র প্রার্থী সাবেক মেয়র কামরুল ইসলাম হোসাইনীর মধ্যে।

এবারের নির্বাচনে আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে নৌকা প্রতীক নিয়ে লড়ছেন পৌরসভা আওয়ামী লীগের যুগ্ম আহবায়ক, বাঁশখালী আইনজীবী সমিতির সাবেক সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট তোফাইল বিন হোছাইন। অপর পক্ষে মোবাইল প্রতীক নিয়ে লড়ছেন বিএনপি সমর্থিত প্রার্থী সাবেক মেয়র কামরুল ইসলাম হোছাইনী।

আওয়ামী লীগের প্রার্থী তোফাইল বিন হোছাইনের পোস্টারে শোভা পাচ্ছে নির্বাচনী এলাকা। মাইকিং ও দলীয় প্রোগ্রাম করে চলছে প্রচারণা। এবারও আসনটি ধরে রাখতে চান আওয়ামী লীগ। তবে মাঠে নেমেছেন সাবেক মেয়র প্রার্থী কামরুল ইসলাম হোছাইনী। প্রতিদিন জনসংযোগ চালিয়ে যাচ্ছেন তিনি। একইসাথে মাঠ চষে বেড়াচ্ছেন সংরক্ষিত আসনের নারী কাউন্সিলর প্রার্থী ও সাধারণ কাউন্সিলর প্রার্থীরা। এবার নির্বাচনে বিপুল জনসমর্থন নিয়ে পুরোদমে প্রচারণা কার্য চালিয়ে যাচ্ছেন তারা ।

স্থানীয় সাধারণ মানুষের মতে, দল নয় ব্যক্তি দেখে ভোট দেবে ভোটাররা। এলাকা উন্নয়নের দলের মনোনয়ন মুখ্য নয়। এক্ষেত্রে প্রার্থীর ব্যক্তিগত মন মানসিকতা, সততা ও যোগ্যতাই আসল ব্যাপার। কাজেই তারা কে কোন দলের প্রার্থী সেটা বিবেচনায় নিতে চান না। তারা ভোট দেবেন প্রার্থীর ব্যক্তিগত ইমেজ, সততা ও যোগ্যতা দেখে।

নিবার্চন কমিশন তথ্য সূত্রে জানা গেছে, বাঁশখালী পৌরসভায় এবার মেয়র পদে নির্বাচনে লড়ছেন ২জন। এছাড়া তিনটি সংরক্ষিত মহিলা আসনে ১০জন এবং ৯টি সাধারণ ওয়ার্ড কাউন্সিলর পদে ৪৪ প্রার্থী। এবার বাঁশখালী পৌরসভা নির্বাচনে ২৬ হাজার ৯৮০ ভোটার রয়েছেন। এ মধ্যে পুরুষ ১৪ হাজার ৯৪ এবং নারী ১২ হাজার ৮৮৬ জন।

বাঁশখালী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. কামাল উদ্দীন বলেন, নির্বাচন সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণভাবে করার জন্য সকল ধরনের পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়েছে। ১১টি কেন্দ্রের মধ্যে ৩/৪টি ভোট কেন্দ্রকে ঝুঁকিপূর্ণ হিসাবে চিহ্নিত করা হয়েছে। এই ঝুঁকিপূর্ণ কেন্দ্রগুলোতে অতিরিক্ত আইনশৃঙ্খলা বাহিনী মোতায়েন করা হবে। কেউ অন্যায়, অনিয়ম ও আইনশৃঙ্খলার অবনতি করতে চাইলে কঠোরভাবে দমন করা হবে।

উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা ও সহকারী প্রিসাইডিং কর্মকর্তা মো. ফয়সাল আলম বলেন, অবাধ ও সুষ্ঠু নির্বাচন পরিচালনা লক্ষ্যে বাঁশখালী পৌরসভা নির্বাচনে আচরণবিধি ও আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে ৩ জন ম্যাজিষ্ট্রেট নিয়োগ দেওয়া হয়েছে। পাশাপাশি আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সগদস্যরাও মাঠে রয়েছে। তাছাড়া ইতোমধ্যে নির্বাচন কমিশন ভোট গ্রহণের সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন করেছেন বলে জানান তিনি।

উল্লেখ্য, ১৬ জানুয়ারি বাঁশখালী পৌরসভার ভোট গ্রহণের দিন ধার্য্য রয়েছে। এবার পৌরসভার ৯টি ওয়ার্ডে ১১টি কেন্দ্রে ভোটগ্রহণ করবে নির্বাচন কমিশন।

ট্যাগ :