বাংলাদেশ, শনিবার, ২০ আগস্ট ২০২২ ৫ই ভাদ্র, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

হিজাব নিষিদ্ধকে ধর্মীয় স্বাধীনতার লঙ্ঘন বলছে যুক্তরাষ্ট্র


প্রকাশের সময় :১৩ ফেব্রুয়ারি, ২০২২ ৫:৫০ : পূর্বাহ্ণ

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ

ভারতের কর্ণাটক রাজ্যে হিজাব ইস্যুতে প্রতিক্রিয়া দেখিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। কর্ণাটকে হিজাব পরা নিষিদ্ধের বিষয়টিকে ‘ধর্মীয় স্বাধীনতা লঙ্ঘন’ অ্যাখা দিয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের আন্তর্জাতিক ধর্মীয় স্বাধীনতা বিষয়ক দূত রশিদ হুসাইন।

এক টুইট বার্তায় রশিদ হুসাইন বলেন, ধর্মীয় স্বাধীনতার মধ্যে একজনের ধর্মীয় পোশাক বেছে নেওয়ার ক্ষমতা অন্তর্ভুক্ত। কর্ণাটকে ধর্মীয় পোশাকের অনুমতি নির্ধারণ করা উচিত নয়। শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে হিজাব নিষিদ্ধ, ধর্মীয় স্বাধীনতা লঙ্ঘন করে।

যুক্তরাষ্ট্রের এই দূতের মন্ত্যের শনিবার পাল্টা প্রতিক্রিয়া জানিয়েছে নয়াদিল্লি। ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র অরিন্দম বাগচি টুইটবার্তায় বলেন, শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে পোশাকের বিষয়টি আদালতের পর্যবেক্ষণে রয়েছে। তবে অভ্যন্তরীণ বিষয়ে এ ধরনের মন্তব্যকে স্বাগত জানাবে না ভারত। যারা ভারত সম্পর্কে স্বচ্ছ ধারণা রাখেন, তারাই যথাযথ বাস্তবতা উপলব্ধি করতে পারবেন।

উল্লেখ্য, গত মাসে ভারতের কর্ণাটকের একটি সরকারি স্কুলে শিক্ষার্থীদের হিজাব পরতে না করে দেওয়া হয়। এরপরই রাজ্যের অন্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোতেও এমন নিষেধাজ্ঞা ছড়িয়ে পড়ে। গত মঙ্গলবার হিজাব পরা এক শিক্ষার্থীকে হিন্দুত্ববাদের সমর্থকদের হাতে নাজেহাল হওয়ার ভিডিও ছড়িয়ে পড়ে। এ নিয়ে ভারতে উত্তেজনা সৃষ্টি হয়। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে কর্ণাটকের কিছু শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ছুটি ঘোষণা করা হয়। বিষয়টি এখনও কর্ণাটকের উচ্চ আদলতে পর্যবেক্ষণে রয়েছে। আগামী সোমবার আবারও শুনানি হওয়ার কথা রয়েছে।

ট্যাগ :